ভিসা ও আমান – শায়খ আবু মুহাম্মাদ আইমান হাফিযাহুল্লাহ

বর্তমান ভিসা কি শরয়ী আমান? মুসলিমদের দেশে ভিসা নিয়ে আসা কাফিরদের ব্যাপারে কি ধরা হবে যে তাদেরকে শরয়ী নিরাপত্তার প্রতিশ্রুতি দেয়া হয়েছে? তাদের রক্ত কি হারাম বিবেচিত হবে? কাফিরদের দেশে ভিসা নিয়ে যাওয়া মুসলিমরা কি সেখানে হামলা করতে পারবেন? ৯/১১ এর মতো হামলা কি জায়েজ বলে গণ্য হবে? এই প্রশ্নগুলোসহ আরো অনেক প্রশ্নের উত্তর পাবেন শাইখ আবু মুহাম্মাদ আইমানের অন্যবদ্য এই রচনায়।

“ভিসার মাসআলাটি একটি আধুনিক মাসআলা। যার ব্যাপারে কুরআন, সুন্নাহ, ইজমা বা পূর্ববর্তী ফুকাহাদের কোন বক্তব্য নেই। শুধু তাই নয়, কতিপয় সমসাময়িক ফকীহ ভিসাকে আমেরিকায় আক্রমণ পরিচালনার জন্য বাঁধা হিসাবে গ্রহণযোগ্য নয় বলে ফাতওয়া দিয়েছেন। যেমন শায়খ নাসির আল-ফাহদ (আল্লাহ তাকে কারামুক্ত করুন)

তাদের অনেকে আমেরিকায় ৯/১১ আক্রমণের জন্য খুশি হয়েছেন, সন্তুষ্টি প্রকাশ করেছেন এবং এ আক্রমণ যে পন্থায় করা হয়েছে, তা জানা সত্ত্বেও যারা এ আক্রমণ পরিচালনা করেছেন তাদের প্রশংসা করেছেন। যেমন শায়খ হামুদ বিন উকলা আশ-শুয়াইবি, শায়খ হুসাইন ওমর ইবনে মাহফুজ, শায়খ আবু মুহাম্মদ আলমাকদিসী, শায়খ আবু কাতাদা ও শায়খ আব্দুল্লাহ আর-রাশুদ।

এটি একটি মতবিরোধপূর্ণ ও গবেষণাগত মাসআলা। যিনি এতে তৃপ্তিবোধ করবেন না, তিনি তা গ্রহণ করবেন না। আর যিনি তৃপ্তিবোধ করবেন, তার জন্য তা গ্রহণ করার সুযোগ রয়েছে।

ফিকহুল জিহাদে ফুকাহায়ে কেরামের এমন অনেক ইখতিলাফের উদাহরণ রয়েছে, যার ফলাফল ব্যাপক। যেমন মুশরিক ও মূর্তিপূজারীদের ব্যাপারে ইখতিলাফ, মুরতাদ নারীকে হত্যার ব্যাপারে ইখতিলাফ এবং এছাড়াও আরো বিভিন্ন মাসআলায় ইখতিলাফ।”

পিডিএফ ডাউনলোড করুন –

ডাউনলোড লিঙ্ক ১

ডাউনলোড লিঙ্ক ২

ডাউনলোড লিঙ্ক ৩

(ডাউনলোড না করেও এই লিঙ্ক থেকে পড়া যাবে )

অন্ধ অনুসরণ হতে সাবধান!

শায়খ আবু মুহাম্মাদ আইমান

ডাউনলোড

কোনো দলীল ছাড়া কিংবা শরয়ী দলীলের বিরোধিতায় নিজ পিতৃপুরুষ বা পূর্বসূরীদেরকে অন্ধ অনুসরণ করা চরম ভ্রষ্টতা বৈ কিছুই নয়। আর এটাই হলো কাফেরদের গোমরাহী ও কুফুরীর অন্যতম কারণ; তা আজকের হোক কিংবা পূর্বকালের হোক। Continue reading

শুকনো খেজুর দিয়ে তৈরি গণতন্ত্রের মূর্তি!

শায়খ আবু মুহাম্মাদ আইমান

ইখওয়ানুল মুসলিমিনের পরিণতি থেকে শিক্ষা

ডাউনলোড

শরবত ও মিষ্টান্ন!

শায়খ আবু মুহাম্মাদ আইমান

ডাউনলোড

[মিসরের সাবেক প্রেসিডেন্ট আনোয়ার সাদাতকে হত্যার অভিযোগে ১৯৮১ সালে শায়খ আবু মুহাম্মাদ আইমান হাফিজাহুল্লাহকে মিসরের তাগুত সরকার কারাগারে বন্দি করে লাগাতার তিন বছর কারাগারে থাকার পর মুক্তি পান Continue reading

শায়খ ইবনে বাজ: “কল্পনা বনাম বাস্তবতা!”

শায়খ আবু মুহাম্মাদ আইমান

ডাউনলোড

আমি কিছু মুসলমানকে শায়েখ ইবনে বাজের ফতোয়াকে প্রচার করতে শুনেছি- যিনি মুসলমানদের মসজিদে নামাজ পড়তে আহবান করেন। আবার ইজরাইলের সাথে ব্যবসাসহ অন্যান্য লেন-দেনকে বৈধ সাব্যস্ত করেন।

অতপর আমি ইজরাইলের প্রধানমন্ত্রী ইসহাক রাবীনের পক্ষ থেকে ইবনে বাজকে শুভেচ্ছা প্রদানের কাহিনী ও শুনেছি। আর এই ধরনের ব্যাক্তি থেকে এমন কান্ড প্রকাশ পাওয়ায় আমি তেমন আশ্চর্যও হইনি যেমনটা অনেক মানুষ হয়েছে। কারণ তার ক্ষেত্রেও আমার আদর্শ হল, ব্যাক্তির পদস্খলনকে কখনোই আকড়ে ধরা হবে না; যদিও অনেকেই তাকে বড় মনে করে থাকে। Continue reading